Breaking News
Home / অন্যান্য / রাজারহাটে একটি বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণে পার্শ্ববর্তী বাড়ির চলাচলের পথ বন্ধ

রাজারহাটে একটি বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণে পার্শ্ববর্তী বাড়ির চলাচলের পথ বন্ধ

রেজাউল হক, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাংগা ইউনিয়নের, ৬ নং ওয়ার্ডে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপন করায়, একটি পরিবারের চলাচলের রাস্তা না পেয়ে ঘড়বন্দি হয়ে জীবন যাপন করতেছে।

একটি ব্যক্তির পরিবারের বিরুদ্ধে পথ রোধ করে, স্কুল নির্মাণের অভিযোগ তুলেছেন, মেহেদী হাসান বাবলু (৩৮) রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাংয়া ইউনিয়নের, ৬ নং ওয়ার্ডে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণ করায়, ঐ পরিবারের বাড়ি থেকে চলাচলের পথ বন্ধ হয়ে গেছে। তাই ঐ পরিবারের সদস্যদের কে ঘরবন্দি জীবন যাপন করতে হচ্ছে।

এবিষয়ে বাড়ির অভিভাবক মোঃ নজির উদ্দিন (৬৮)তর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণের আগে উত্তর দিকে মাটি পরীক্ষা করেছেন, উঃ দিকে ভবনটি নির্মাণ করার কথাও হয়েছিল। কিন্তু পরে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তী আমার ছেলের সাথে ষড়যন্ত্র করে, আমাদের চলাচলের রাস্তা না দিয়ে, নতুন ভবনটি নির্মাণ কাজ করেছেন।

এদিকে মেহেদী হাসান বাবলু (৩৮) কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ১০ বছর থেকে আমার বাবা- মা, এবং পরিবারের সদস্যদেরকে নিয়ে স্কুলের পাশ দিয়ে চলাচল করে আসিতেছিল। কিন্তু এখন নতুন ভবনটি নির্মাণ করায় আমার পরিবারের চলাচলের রাস্তা বন্ধ হয়ে গেছে। এখন রাস্তা না থাকায় আমার পরিবার টি ঘরবন্দি জীবন যাপন করতে হচ্ছে।

আরও এবিষয়ে তিনি বলেন, সরকারি জমিতে যদি আমার ঘরের বারেন্দা পরে থাকে তাহলে আমি ঐ বারান্দা সরিয়ে নিতে রাজি আছি, কিন্তু আমার বাড়িতে চলাচলের রাস্তার কি হবে? এখন আমার পরিবারের চলাচলের রাস্তা বন্ধ হয়ে জীবন যাপন করতেছে এবিষয়ে দেখার কেউ নাই?

পরে এবিষয়ে এলাকাবাসী নুর ইসলাম (৬০) রোকন (৪০) রফিকুল ইসলাম (৩৮) রিপন মিয়া (২৬) কাছে জানতে চাইলে, রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তী বিরুদ্ধে অভিযোগ করে বলেন, ঐ স্কুলের প্রধান শিক্ষক যদি চাইতেন যে, ঐ বাড়ি যাওয়ার চলাচলের রাস্তা রেখে দিয়ে ভবনটি নির্মাণ করবো, সে ক্ষেত্রে তিনি সেটা করতে পারতেন। আমাদের মতে ঐ পরিবারের চলাচলের রাস্তা না দিয়ে নতুন ভবন নির্মাণের কাজ করা ঠিক হয় নাই। এখন ঐ পরিবারের চলাচলের রাস্তা না থাকায় চরম বিপাকে পড়েছেন।

পরে এবিষয়ে, রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তী (৫৬) কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,গত ২৮ আগষ্ট ২০১৯ ইং তারিখে নতুন ভবনটির নির্মাণ কাজ করা হয়েছে। কিন্তু আমার সিদ্ধান্তে এই ভবনের কাজ হয়নি, কারণ যেখানে ভবনটি নির্মাণ কাজ হয়েছে, সেখানে মাটি পরিক্ষা করে মাটি ভাল পাওয়ার কারণে সেখানে নতুন ভবনটির কাজ করা হয়েছে তাই এতে আমার কোন হাত নেই, এই ভবনের কাজ সকলের সিদ্ধান্ত নিয়ে করা হয়েছে।

এবিষয়ে এলাকাবাসী নুর ইসলাম (৬০) রোকন (৪০) রফিকুল ইসলাম (৩৮) রিপন মিয়া (২৬) কাছে জানতে চাইলে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে অভিযোগ করে বলেন, ঐ বাড়ির রাস্তার বিষয়ে যদি প্রধান শিক্ষক একটু সুপারিশ করতো তাহলে স্কুলের ভবন টি একটু সরিয়ে নিয়ে ভবনটি নির্মাণ করতে পারতো। কিন্তু তা না করে ঐ বাড়ির রাস্তা সম্পর্কে না ভেবে ভবন টি নির্মাণ করায় ঐ বাড়ির লোকজনের চলাচলের কোন রাস্তা না থাকায় ঘরবন্দি হয়ে বিপাকে পড়েছে।

এবিষয়ে ঘড়িয়ালডাংগা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শ্রী রবীন্দ্রনাথ কর্মকারের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, মেহেদী হাসান বাবলু আমাদের সাথে সম্মিলিত ভাবে যোগাযোগ করলে, চলাচলের রাস্তার বিষয়টি চেস্টা করে

রেজাউল হক, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি:

কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাংগা ইউনিয়নের, ৬ নং ওয়ার্ডে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপন করায়, একটি পরিবারের চলাচলের রাস্তা না পেয়ে ঘড়বন্দি হয়ে জীবন যাপন করতেছে।

একটি ব্যক্তির পরিবারের বিরুদ্ধে পথ রোধ করে, স্কুল নির্মাণের অভিযোগ তুলেছেন, মেহেদী হাসান বাবলু (৩৮) রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাংয়া ইউনিয়নের, ৬ নং ওয়ার্ডে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণ করায়, ঐ পরিবারের বাড়ি থেকে চলাচলের পথ বন্ধ হয়ে গেছে। তাই ঐ পরিবারের সদস্যদের কে ঘরবন্দি জীবন যাপন করতে হচ্ছে।

এবিষয়ে বাড়ির অভিভাবক মোঃ নজির উদ্দিন (৬৮)তর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণের আগে উত্তর দিকে মাটি পরীক্ষা করেছেন, উঃ দিকে ভবনটি নির্মাণ করার কথাও হয়েছিল। কিন্তু পরে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তী আমার ছেলের সাথে ষড়যন্ত্র করে, আমাদের চলাচলের রাস্তা না দিয়ে, নতুন ভবনটি নির্মাণ কাজ করেছেন।

এদিকে মেহেদী হাসান বাবলু (৩৮) কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ১০ বছর থেকে আমার বাবা- মা, এবং পরিবারের সদস্যদেরকে নিয়ে স্কুলের পাশ দিয়ে চলাচল করে আসিতেছিল। কিন্তু এখন নতুন ভবনটি নির্মাণ করায় আমার পরিবারের চলাচলের রাস্তা বন্ধ হয়ে গেছে। এখন রাস্তা না থাকায় আমার পরিবার টি ঘরবন্দি জীবন যাপন করতে হচ্ছে।

আরও এবিষয়ে তিনি বলেন, সরকারি জমিতে যদি আমার ঘরের বারেন্দা পরে থাকে তাহলে আমি ঐ বারান্দা সরিয়ে নিতে রাজি আছি, কিন্তু আমার বাড়িতে চলাচলের রাস্তার কি হবে? এখন আমার পরিবারের চলাচলের রাস্তা বন্ধ হয়ে জীবন যাপন করতেছে এবিষয়ে দেখার কেউ নাই?

পরে এবিষয়ে এলাকাবাসী নুর ইসলাম (৬০) রোকন (৪০) রফিকুল ইসলাম (৩৮) রিপন মিয়া (২৬) কাছে জানতে চাইলে, রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তী বিরুদ্ধে অভিযোগ করে বলেন, ঐ স্কুলের প্রধান শিক্ষক যদি চাইতেন যে, ঐ বাড়ি যাওয়ার চলাচলের রাস্তা রেখে দিয়ে ভবনটি নির্মাণ করবো, সে ক্ষেত্রে তিনি সেটা করতে পারতেন। আমাদের মতে ঐ পরিবারের চলাচলের রাস্তা না দিয়ে নতুন ভবন নির্মাণের কাজ করা ঠিক হয় নাই। এখন ঐ পরিবারের চলাচলের রাস্তা না থাকায় চরম বিপাকে পড়েছেন।

পরে এবিষয়ে, রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তী (৫৬) কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,গত ২৮ আগষ্ট ২০১৯ ইং তারিখে নতুন ভবনটির নির্মাণ কাজ করা হয়েছে। কিন্তু আমার সিদ্ধান্তে এই ভবনের কাজ হয়নি, কারণ যেখানে ভবনটি নির্মাণ কাজ হয়েছে, সেখানে মাটি পরিক্ষা করে মাটি ভাল পাওয়ার কারণে সেখানে নতুন ভবনটির কাজ করা হয়েছে তাই এতে আমার কোন হাত নেই, এই ভবনের কাজ সকলের সিদ্ধান্ত নিয়ে করা হয়েছে।

এবিষয়ে এলাকাবাসী নুর ইসলাম (৬০) রোকন (৪০) রফিকুল ইসলাম (৩৮) রিপন মিয়া (২৬) কাছে জানতে চাইলে রাজমোহন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্রী রতন চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে অভিযোগ করে বলেন, ঐ বাড়ির রাস্তার বিষয়ে যদি প্রধান শিক্ষক একটু সুপারিশ করতো তাহলে স্কুলের ভবন টি একটু সরিয়ে নিয়ে ভবনটি নির্মাণ করতে পারতো। কিন্তু তা না করে ঐ বাড়ির রাস্তা সম্পর্কে না ভেবে ভবন টি নির্মাণ করায় ঐ বাড়ির লোকজনের চলাচলের কোন রাস্তা না থাকায় ঘরবন্দি হয়ে বিপাকে পড়েছে।

এবিষয়ে ঘড়িয়ালডাংগা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শ্রী রবীন্দ্রনাথ কর্মকারের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, মেহেদী হাসান বাবলু আমাদের সাথে সম্মিলিত ভাবে যোগাযোগ করলে, চলাচলের রাস্তার বিষয়টি চেস্টা করে দেখবো।

এ বিষয়ে রাজারহাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জনাবা নুরে তাসনিম মহাদয়ের কাছে

SK Computer, Godagari, Rajshahi. 01721031894

About জনতার কথা ডেস্ক

Check Also

রাজশাহীতে প্রতারক ও মানব পাচারকারী চক্রের ৩ সদস্য আটক

মো.পাভেল ইসলাম নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহী নগরীতে প্রতারক ও মানব পাচারকারী চক্রের তিনজন সক্রিয় সদস্যকে গ্রেফতার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *